Redmi K20 Pro রিভিউ: OnePlus কে টেক্কা দিতে পারল এই ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন?

ফেসবুকে শেয়ার করুন টুইট শেয়ার রেডিট কমেন্ট
Redmi K20 Pro রিভিউ: OnePlus  কে টেক্কা দিতে পারল এই ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন?

Redmi K20 Pro এর দাম শুরু হচ্ছে 27,999 টাকা থেকে

হাইলাইট
  • Redmi K20 Pro তে রয়েছে Snapdragon 855 চিপসেট
  • 4,000mAh ব্যাটারিতে দেড় দিন ব্যাক আপ পাওয়া যাবে
  • ফোনের পিছনে থাকছে অলরাউন্ডার ট্রিপল ক্যামেরা

2014 সালে Mi 3 এর হাত ধরে ভারতে এসেছিল Xiaomi। অবিশ্বাস্য দামে Snapdragon 800 প্রসেসার সহ ভারতে Mi 3 লঞ্চ করে শুরুতেই গ্রাহকের মন জিতেছিল চিনের কোম্পানিটি। এর পরে ভারতে Redmi ব্র্যান্ডের অধীনে একের পর এক মিডরেঞ্জ আর এন্ট্রি লেভেল স্মার্টফোন লঞ্চ করে দেশের এক নম্বর স্মার্টফোনের তকমা ছিনিয়ে নিয়েছে Xiaomi। Redmi K20 Pro এর হাত ধরে এই প্রথম Redmi ব্র্যান্ডের অধীনে ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন লঞ্চ করল Xiaomi। সম্প্রতি লঞ্চ হওয়া OnePlus 7 আর OnePlus 7 Pro কে কড়া চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি করেছে এই স্মার্টফোন।

মে মাসে চিনে লঞ্চ হয়েছিল Redmi K20 আর Redmi K20 Pro। এর পরেই ভারতে এই ফোন লঞ্চের ঘোষনা মরে দিয়েছেন Xiaomi ভাইস প্রেসিডেন্ট মনু কুমার জৈন। এই মুহুর্তে Redmi K20 Pro ভারতের সবথেকে সস্তা স্মার্টফোন যার মধ্যে রয়েছে একটি Snapdragon 855 চিপসেট। এছাড়াও Redmi K20 Pro ফোনে রয়েছে আধুনিক ডিজাইন, পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা, ডিসপ্লের নীচে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর আর ট্রিপল রিয়ার ক্যামেরা। OnePlus কে টেক্কা দিতে পারবে এই স্মার্টফোন? পড়ুন Redmi K20 Pro রিভিউ।

Redmi K20 Pro ডিজাইন

সম্প্রতি বিভিন্ন ফ্ল্যাগশিপে একাধিক নতুন ডিজাইন দেখা গিয়েছে। Asus 6Z ফোনে ছিল রোটেটিং ক্যামেরা, OnePlus 7 Pro ফোনে পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা দেখা গিয়েছিল। একই ভাবে Xiaomi -র ফ্ল্যাগশিপ Redmi K20 Pro ফোনেও থাকছে পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা।

পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা ব্যবহারের জন্য Redmi K20 Pro ফোনে থাকছে একটি ফুল ভিউ AMOLED ডিসপ্লে। এই ফোনে রয়েছে একটি 6.39 ইঞ্চি AMOLED ডিসপ্লে। FHD+ এই ডিসপ্লেতে থাকছে  HDR প্যানেল। বাইরে এই ফোন সহজে ব্যবহারের জন্য ডিসপ্লেতে থাকছে DCI-P3 কালার গামুট।

AMOLED ডিসপ্লে ব্যবহারের জন্য Redmi K20 Pro তে থাকছে অলওয়েজ অন ডিসপ্লে। সেখানে সময় ও বিভিন্ন নোটিফিকেশন এক নজরে দেখে নেওয়া যাবে। এছাড়াও ফোনের ডিসপ্লের নীচেই থাকছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর।

Redmi K20 Pro ফোনের সামনে ও পিছনে থাকছে Gorilla Glass 5 এর সুরক্ষা। ফোনের পাশে থাকছে মেটাল ফ্রেম। ফোনের পিছনে কার্ভড গ্লাস থাকার জন্য সহজেই এই ফোন এক হাতে নিয়ে ব্যবহার করা সম্ভব। ফোনের ডান দিকে থাকছে পাওয়ার আর ভলিউম বাটন। ভলিউম বাটন তুলনামুলক উপরে থাকার জন্য এক হাতে ব্যবহারে সমস্যা হয়েছে আমাদের। পাওয়ার বাটনে থাকছে লাল রঙ। গ্লেশিয়ার ব্লু, ফ্লেম রেড আর কার্বোন ব্ল্যাক রঙে পাওয়া যাবে Redmi K20 Pro।

Redmi K20 Pro Top ports Redmi K20 Pro ReviewRedmi K20 Pro ফোনের উপরে রয়েছে পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা আর 3.5 মিমি অডিও জ্যাক

Redmi K20 Pro ফোনে রয়েছে পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা। এছাড়াও পপ-আপ মডিউলের কধ্যেই থাকছে LED ফ্ল্যাশ। তবে চাইলে এই LED ফ্ল্যাশ বন্ধ করে রাখা সম্ভব। Redmi K20 Pro ফোনের উপরে রয়েছে 3.5 মিমি হেডফোন জ্যাক। ফোনের নীচে থাকছে USB Type-C পোর্ট, স্পিকার গ্রিল আর সিম ট্রে। ফোনের বাঁ দিকে কিছু থাকছে না।

Redmi K20 Pro ফোনের পিছনে গ্রেডিয়েন্ট ফিনিশ ব্যবহার করেছে Xiaomi। এই ফোনে থাকছে সম্পূর্ণ নতুন ডিজাইনের গ্রেডিয়েন্ট ফিনিশ। ফোনের পিছনে থাকছে তিনটি ক্যামেরা। প্রাইমারি ক্যামেরাটি অন্য ক্যামেরার থাকা আলাদা রয়েছে। সাথে থাকছে ডুয়াল টোন LED ফ্ল্যাশ।

Redmi K20 Pro স্পেসিফিকেশন ও সফটওয়্যার

ডুয়াল সিম Redmi K20 Pro ফোনে Android 9.0 Pie অপারেটিং সিস্টেমের উপরে চলবে কোম্পানির MIUI 10  স্কিন। Xiaomi জানিয়েছে এই ফোনে MIUI স্কিনে অন্যান্য ফোনের বিজ্ঞাপন দেখানো হবে না। ফোনের ভিতরে রয়েছে 6.39 ইঞ্চি AMOLED FHD+ ডিসপ্লে। ডিসপ্লের নীচে থাকছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সার। ফোনের ভিতরে রয়েছে Snapdragon 855 চিপসেট, 8GB RAM আর 256GB  স্টোরেজ।

ছবি তোলার জন্য Redmi K20 Pro ফোনের পিছনে রয়েছে তিনটি ক্যামেরা। প্রাইমারি ক্যামেরায় রয়েছে 48 মেগাপিক্সেল সেন্সার। সাথে রয়েছে 13 মেগাপিক্সেল ওয়্যাইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা। আর একটি 8 মেগাপিক্সেল সেন্সার। সেলফি তোলার জন্য এই ফোনে রয়েছে একটি 20 মেগাপিক্সেল পপ-আপ ক্যামেরা।

Redmi K20 Pro ফোনে রয়েছে একটি 4,000 mAh ব্যাটারি। সাথে রয়েছে 27W ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট। কানেক্টিভিটর জন্য রয়েছে Wi-Fi 802.11ac, Bluetooth 5.0, GPS, NFC। USB Type-C পোর্ট আর 3.5 মিমি হেডফোন জ্যাক।

Redmi K20 Pro Android Pie Redmi K20 Pro ReviewRedmi K20 Pro ফোনে Android Pie অপারেটিং সিস্টেমের উপরে MIUI 10 স্কিন চলবে

Redmi K20 Pro এর দাম শুরু হচ্ছে 27,999 টাকা থেকে। 6GB RAM + 128GB স্টোরেজে পাওয়া যাবে এই ফোনের বেস ভেরিয়েন্ট। 8GB RAM + 256 GB স্টোরেজে Redmi K20 Pro কেনার খরচ 30,999 টাকা।

Redmi K20 Pro পারফর্মেন্স ও ব্যাটারি লাইফ

এই স্মার্টফোন ব্যবহারের সময় আমরা কখনই কোন ল্যাগ অনুভব করিনি। জলদি এই ফোনে যে কোন অ্যাপ লোড হয়। রিভিউ ইউনিটে 8GB RAM থাকার কারনে মাল্টি টাস্কিং এও কোন সমস্যা হয়নি।

Redmi K20 Pro ফোনের ডিসপ্লের নীচে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর থাকছে। সঠিকভাবে জলদি ফোন আনলক করতে পারে এই ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। তনে OnePlus 7 এর ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর Redmi K20 Pro এর ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সরের থেকে দ্রুত কাজ করে। ফেস আনলকের সময় প্রতিবার এই ফোনের সেলফি ক্যামেরা উঠে আসে। এর ফলে Redmi K20 Pro ফোনের ফেস আনলক প্রক্রিয়া অনেকটাই ধীরে হয়। তবে হাত সেলফি ক্যামেরা বেরিয়ে থাকা অবস্থায় ফোন হাত থেকে পরে গেলে ক্যামেরা রক্ষা করতে তা নিজে থেকেই ক্যামেরার মধ্যে ঢুকে যায়।

Redmi K20 Pro SIM tray Redmi K20 Pro Reviewডুয়াল সিম Redmi K20 Pro তে মাইক্রো এসডি কার্ড সাপোর্ট থাকছে না

Redmi K20 Pro ফোনে রয়েছে একটি HDR ডিসপ্লে। YouTube থেকে আমরা এই ফোনে HDR ভিডিও দেখতে পেয়েছি। OnePlus 7 ফোনে স্টেরিও স্পিকার ব্যবহার হলেও Redmi K20 Pro ফোনের নীচে একটি মাত্র স্পিকার থাকছে।

AnTuTu বেঞ্চমার্কিং এ 368,332 পয়েন্ট পেয়েছে Redmi K20 Pro। একই বেঞ্চমার্কিং এ OnePlus 7 এর স্কোর 375,219। Geekbench 4 এ সিঙ্গেল কোর ও মাল্টি কোর পরীক্ষায় Redmi K20 Pro যথাক্রমে 3,421 আর 10,775 স্কোর করেছে।

Redmi K20 Pro ফোনে থাকছে একটি 4,000 mAh ব্যাটারি। সাথে থাকছে 27W ফাস্ট চার্জ সাপোর্ট। তবে বাক্সের মধ্যে একটি 18W চার্জার দিয়েছে Xiaomi। 999 টাকা দিয়ে আলাদা করে 27W ওয়াল চার্জার কিনতে পাত্রবেন গ্রাহকরা।

HD মোডে ফ্রেম রেট হাই করে PUBG Mobile খেলা গিয়েছে এই ফোনে। এমনকি HDR আর আল্ট্রা মোডেও PUBG Mobile খেলতে কোন অসুবিধা হয়নি। 30 মিনিট গেম খেলার পরে ফোনের ব্যাটারি 13 শতাংশ কমেছে।

আমাদের HD ভিডিও লুপ টেস্টে 19 ঘন্টা 26 মিনিট চলেছে Redmi K20 Pro। সাধারন ব্যবহারে গোটা দিন ব্যবহারের পরেও ফোনে 50 শতাংশের বেশি ব্যাটারি ছিল। খুব বেশি ফোন ব্যবহারের ভভ্যাস না থাকলে সহজেই এই ফোনে দুই দিন ব্যাক আপ পাওয়া সম্ভব।

ব্যাটারি শেষ হলে বাক্সের সাথে থাকা 18W চার্জার দিয়ে 30 মিনিটে 45 শতাংশ থেকে 80 শতাংশ চার্জ হয়েছে এই স্মার্টফোন।

Redmi K20 Pro Charging Redmi K20 Pro Review Redmi K20 Pro ফোনের সাথে 18W চার্জার দিচ্ছে Xiaomi

Redmi K20 Pro ক্যামেরা

Redmi K20 Pro ফোনের পিছনে রয়েছে তিনটি ক্যামেরা। প্রাইমারি ক্যামেরায় রয়েছে একটি 48 মেগাপিক্সেল Sony IMX586 সেন্সর। এই ক্যামেরায় থাকছে f/1.75 অ্যাপারচার আর 1.6 মাইক্রন পিক্সেল। সাথে থাকছে একটি 13 মেগাপিক্সেল অল্ট্রা ওয়াইড অয়াঙ্গেল ক্যামেরা। এই ক্যামেরায় থাকছে f/2.4 অ্যাপারচার। ওয়াইড ক্যামেরাতে 124 ডিগ্রি ফিল্ড অফ ভিউ পাওয়া যাবে। এর সাথেই থাকছে একটি 8 মেগাপিক্সেল টেলিফটো লেন্স। দ্রুত ফোকাসের জন্য এই ফোনে থাকছে লেজার অটোফোকাস আর PDAF। সেলফি তোলার জন্য এই ফোনে রয়েছে একটি 20 মেগাপিক্সেল পপ-আপ ক্যামেরা।

কোম্পানির অন্যান্য ফোনের থেকে Redmi K20 Pro ফোনের ক্যামেরা অ্যাপে খুব বেশি পার্থক্য নেই। থাকছে একই মোড। এই ফোনের 48 মেগাপিক্সেল ক্যামেরার চারটে পিক্সেল এক করে 12 মেগাপিক্সেল ছবি তোলা সম্ভব। পোট্রেট মোডে Redmi K20 Pro ফোনে টেলিফটো লেন্স ব্যবহার করে ছবি ওঠে। অর্থাৎ পোট্রেট মোডে ছবি তোলার সময় সাবজেঙ্কট থেকে কিছু দূরে গিয়ে ছবি তিলতে হবে।

Redmi K20 Pro ক্যামেরায় সব মোডে তোলা ছবিতে ভালো ডিটেল পেয়েছি আমরা। অল্ট্রা ওয়াইড ক্যামেরায় ডিসটর্সান বারিল করার জন্য বিশেষ অ্যালগোরিদম ব্যবহার হয়েছে। কাছে ছবি তোলা সময় এই ক্যামেরায় দ্রুত ফোকাস করা সম্ভব। সাবজেক্ট ও ব্যাকগ্রাউন্ডের মধ্যে দারুন ডেপ্ত পেয়েছি আমরা।

Redmi K20 Pro ক্যামেরায় তোলা ছবি (সম্পূর্ণ সাইজ দেখতে ছবির উপরে ক্লিক করুন)

কম আলোতেও Redmi K20 Pro ক্যামেরায় দুর্দান্ত ছবি উঠেছে। তবে কম আলোতে টেলিফটো ক্যামেরায় তোলা ছবিতে ব্লার পাওয়া গিয়েছে। সব মিলিয়ে Redmi K20 Pro ফোনে একটি অলরাউন্ডার ক্যামেরা ব্যবহার করেছে বেজিং এর কোম্পানিটি।

সেলফি তোলার জন্য Redmi K20 Pro তে রয়েছে একটি 20 মেগাপিক্সেল পপ-আপ ক্যামেরা। এই ক্যামেরাতেও দারুল ছবি উঠবে। থাকছে দারুন ডিটেল আর দুর্দান্ত কালার টোন।

Redmi K20 Pro ফোনের পিছনের ক্যামেরায়  60 fps 4K ভিডিও রেকর্ডিং করা যাবে। সেলফি ক্যামেরা দিয়ে 30 fps 1080p ভিডিও রেকর্ড করা সম্ভব।

মতামত

এই প্রথম Redmi ব্র্যান্ডের অধীনে ফ্ল্যাগশিপ স্মার্টফোন লঞ্চ হল। Redmi K20 Pro ফোনে ওয়্যারলেস চার্জিং অথবা আইপি রেটিং এর মতো ফিচার থাকছে না। তবে অবিশ্বাস্য দামে Snapdragon 855 চিপসেট সহ পাওয়া যাবে Redmi K20 Pro। এর সাথেই এই ফোনে থাকছে পপ-আপ সেলফি ক্যামেরা, AMOLED ডিসপ্লে আর 8GB RAM।

এই ফোনের 4,000 mAh ব্যাটারি খুব সহজেই দেড় দিন ব্যাক আপ দেবে। এছাড়াও ফাস্ট চার্জিং এর মাধ্যমে জলজি চার্জ করে নেওয়া যাবে এই স্মার্টফোন। OnePlus 7 ফোনে UFS 3.0 স্টোরেজ থাকলেও Redmi K20 Pro তে এই ফিচার থাকছে না। Asus 6Z আর OnePlus 7 এর থেকে অনেকটা কম দামে Snapdragon 855 চিপসেট দিচ্ছে Redmi K20 Pro। 27,999 টাকা থেকে এই ফোনের দাম শুরু হচ্ছে। তবে ফ্ল্যাশ সেলে এই ফোন কেনার সময় সমস্যা দেখা যেতে পারে।

কমেন্ট

প্রযুক্তির সাম্প্রতিক খবর আর রিভিউস জানতে লাইক করুন আমাদের Facebook পেজ অথবা ফলো করুন Twitter আর সাবস্ক্রাইব করুন YouTube.

পড়ুন: English தமிழ்
 
 

বিজ্ঞাপন

 
© Copyright Red Pixels Ventures Limited 2019. All rights reserved.